যারা সাহিত্য চর্চা করেন তারা সুন্দর মনের মানুষ

ফেঞ্চুগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ কবি কালাম আজাদ বলেছেন, সাহিত্য মানুষের মনের খোরাক। যারা সাহিত্য চর্চা করেন তারা সুন্দর মনের মানুষ হয়ে থাকেন। তিনি বলেন, এ সৃষ্টিজগতের সবকিছুই একটা ছন্দের মধ্যে চলমান। তাই ছন্দের প্রতি মানুষের অন্যরকম একটা সম্পর্ক এবং আকর্ষণ রয়েছে। ছন্দ বা ছড়া সাহিত্যের গুরুত্বপূর্ণ একটা দিক।
সিলেটের প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান দোআঁশ থেকে প্রকাশিত কবি ও শিক্ষক শাহীদুল মুরছালীনের ছড়ার বই ‘ছন্দকানন’-এর প্রকাশনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। গত শনিবার সন্ধ্যায় কেন্দ্রীয় মুসলিম সাহিত্য সংসদের সাহিত্য আসর কক্ষে এ অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়।
কেন্দ্রীয় মুসলিম সাহিত্য সংসদের সহ-সভাপতি, সাংবাদিক ও গল্পকার সেলিম আউয়ালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় মুসলিম সাহিত্য সংসদের সাধরণ সম্পাদক দেওয়ান মাহমুদ রাজা চৌধুরী, সিলেট প্রেসক্লাবের সাবেক সাধরণ সম্পাদক ও একাত্তর টিভির সিলেট ব্যুরো চিফ ইকবাল মাহমুদ, কবি মামুন সুলতান, কানাইঘাট সাহিত্য সংসদের সভাপতি কবি সরওয়ার ফারুকী ও সাংবাদিক গোলজার আহমদ হেলাল।
অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করেন গল্পকার ও অভিনেতা মিনহাজ ফয়সল। কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন শাহ মোহাম্মদ জাকারিয়া। দেশাত্ববোধক গান পরিবেশন করেন তাওহীদ সুফিয়ান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন দোআঁশের পরিচালক লেখক ও সাংবাদিক লুৎফুর রহমান তোফায়েল।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জিগলি স্কুল অ্যান্ড কলেজের প্রভাষক আয়াতুল্লাহ, ইসলামী ব্যাংক কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল মামুন, গোয়াইনঘাট উপজেলার উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা জয়নুর রশীদ, সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চবিদ্যালয়ের শিক্ষক সাইদুল হক, ব্যবসায়ী উবায়দুল হক শাহীন, কবি সজীব মোহাম্মদ আরিফ, অনুপ্রাণন সম্পাদক নাসির উদ্দিন, সহ-সম্পাদক আলমগীর চৌধুরী, প্রতিভাত সাহিত্য পরিষদের সভাপতি আলী হোসেন, ক্যালিওগ্রাফি শিল্পী ও শিক্ষক জাহিদ হোসাইন রাহীন, জৈন্তা সাহিত্য-সাংস্কৃতি পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মাছুম, সাংগঠনিক সম্পাদক সোহেল আহমদ, ক্রীড়া সম্পাদক আলী আকবর সিদ্দিক, গল্পকার তাসলিমা খানম বীথি, কবি শামস মাহবুব, মুক্তিছায়া ফাউন্ডেশনের সহকারী পরিচালক রুবেল আহমদ, সাইদুজ্জামান প্রমুখ। -বিজ্ঞপ্তি।