জাবেদ আহমদ বাংলাদেশ ব্যাংকের ডিজিএম পদোন্নতিতে সিলেট এক্সপ্রেসের সংবর্ধনা

নিজস্ব প্রতিবেদক
বাংলাদেশ ব্যাংকের যুগ্মপরিচালক মো. জাবেদ আহমদ মেধাভিত্তিতে ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম) পদোন্নতিতে সিলেট এক্সপ্রেসের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। আজ শনিবার (০২ জানুয়ারি ২০২১) দুপুরে উন্দাল কিং কাবাবে সিলেট এক্সপ্রেস পরিবারের ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত হন সিলেট এক্সপ্রেসের সম্মানীত কলামিস্ট ও সাইক্লোন সভাপতি জাবেদ আহমদ। এসময় উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট গল্পকার ও সাংবাদিক সেলিম আউয়াল, সাইক্লোন সেক্রেটারি এডভোকেট আব্দুস সাদেক লিপন,সিলেট এক্সপ্রেস’র সম্পাদক সাংবাদিক আব্দুল বাতিন ফয়সল, ব্যবস্থাপনা সম্পাদক রোটারিয়ান আব্দুল মুহিত দিদার, গল্পকার তাসলিমা খানম বীথি, সিলেট এক্সপ্রেস’র স্টাফ রিপোর্টার ইফতেখার শামীম ও শেখ সাব্বির।
উল্লেখ্য গত ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ প্রধান কার্যালয়ের হিউম্যান রিসোর্সেস ডিপার্টমেন্ট-১ এর আদেশে তাকে’সহ ৬ জনকে ডিজিএম হিসেবে পদোন্নতি দেয়া হয়। জাবেদ আহমদ ১৯৯১ সালে কয়েন/নোট এক্সামিনার হিসেবে বাংলাদেশ ব্যাংকে যোগদান করেন। ১৯৯৬ সালে অফিসার হিসেবে পদোন্নতি পান। সেন্ট্রাল ব্যাংকের কৃতি কর্মকর্তা জাবেদ আহমদ মেধা ও দক্ষতার স্বাক্ষর রেখে ২০০৩ সালে সহকারী পরিচালক, ২০১১ সালে উপপরিচালক, ২০১৫ সালে যুগ্মপরিচালক এবং ৩১ডিসেম্বর ২০২০ ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার হিসেবে পদোন্নতি পান। সিলেট ও চট্টগ্রাম অফিসের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ শাখা বিভাগে তাঁর কাজের অভিজ্ঞতা রয়েছে। বিভিন্ন সময়ে দেশে বিদেশে তিনি প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন। ২০১৮ সালে অফিসিয়াল প্রশিক্ষণে তিনি শ্রীলঙ্কা সফর করেন। এছাড়া ব্যক্তিগত সফরে তিনি সৌদি আরব, মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর, ভারত সফর করেছেন। দীর্ঘ তিন দশকের ব্যাংকিং ক্যারিয়ারে চৌকস সেন্ট্রাল ব্যাংকার জাবেদ আহমদ বাংলাদেশ ব্যাংকে পেশাগত দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি কর্মকর্তা কর্মচারীদের বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃত্ব দান করেছেন। তিনি বাংলাদেশ ব্যাংক কর্মচারী সংঘের (১৯৯২-১৯৯৫) সাধারণ সম্পাদক, অফিসার্স ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন এর (২০০০-২০০২) সভাপতি, অফিসার্স ওয়েলফেয়ার কাউন্সিল এর (২০০৯-২০১১) সেক্রেটারী, বাংলাদেশ ব্যাংক ক্লাব এর ২০১২ ও ২০১৬ সভাপতি ও সেক্রেটারী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। বাংলাদেশ ব্যাংকের ঘরোয়া মাসিক পত্রিকা ‘বাংলাদেশ ব্যাংক পরিক্রমা’ এর তিনি সিলেট অফিস প্রতিনিধি। মুক্তিযুদ্ধ ও অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বিশ্বাসী হলুদ দল, বাংলাদেশ ব্যাংক, সিলেট এর তিনি সভাপতির দায়িত্বে রয়েছেন। বাংলাদেশ ব্যাংকে যোগদানের পূর্বে তিনি সিলেটের জনপ্রিয় পত্রিকা ‘দৈনিক সিলেটের ডাক’ এ স্টাফ রিপোর্টার হিসেবে বেশ কয়েক বছর কাজ করেন। জাবেদ আহমদের বাবা মরহুম ফৈয়াজ উদ্দিন আহমদ (ফজই মিয়া) আজীবন তাবলীগ জামাতের সাথে দ্বীনের কাজে সম্পৃক্ত ছিলেন। মাতা মরহুমা আলহাজ্জ্ব তাহেরা চৌধুরী ছিলেন গৃহিণী ও শিক্ষানুরাগী। তাঁর পৈত্রিক নিবাস সিলেটের গোলাপগঞ্জ উপজেলার রাণাপিং শেরপুর গ্রামে। তিনি দুই কন্যা ও দুই পুত্রের জনক।
ব্যাংকের চাকুরীর পাশাপাশি জাবেদ আহমদ একজন সামাজিক ও ক্রীড়া সংগঠক হিসেবে সিলেট নগরীতে সুপরিচিত। সিলেটের চার দশকের পুরনো সামাজিক সাংস্কৃতিক ও সাহিত্য সংগঠন ‘সাইক্লোন কেন্দ্রীয় সংসদ, সিলেট এর সভাপতি, সিলেট মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের প্রচার সম্পাদক, আল আমিন সমিতি, রিকাবীবাজার, সিলেট এর সভাপতি, সিলেট সিটি কর্পোরেশনের ৯ নম্বর ওয়ার্ড পুলিশিং কমিটির সদস্য, আমরা মোহামেডান, সিলেট জেলা শাখার প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি, মোহামেডান সমর্থক দল, সিলেট জেলা কমিটির প্রাক্তন ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক, মোহামেডান ফ্যান ক্লাব, আম্বরখানা কলোনীর প্রাক্তন সহসভাপতি, উপরপাড়া স্বজন সমাজকল্যাণ পরিষদের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক, মোহাম্মদ উবেদ আহমদ চৌধুরী শিক্ষা ট্রাস্ট, সিলেট ও সাইক্লোন লেখক ট্রাস্ট, সিলেট এর উদ্যোক্তা ট্রাস্টি ও সেক্রেটারী, আম্বরখানা সরকারি কলোনী এ্যালামনাই সোসাইটির সেক্রেটারী, খাঁরপাড়া মিতালী সমাজকল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক, বায়তুল হামদ জামে মসজিদ ও আরজদ আলী জামে মসজিদ কমিটির প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য, শেরপুর জামে মসজিদ পুনঃনির্মাণ কমিটির সদস্য হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন।

1